national news: সবার দানে ১৬ কোটির ওষুধ পেল খুদে – hyderabad child suffering from rare genetic disease received 16 crore fund from social media platform

Share Now





হাইলাইটস

  • অন্য পাঁচটা বাচ্চার চেয়ে একটু আলাদা সে। ছ’মাস বয়স থেকেই বুঝতে পারছিলেন বাবা-মা।
  • জানা গেল, ছোট্ট আয়াংশ ভুগছে স্পাইনাল মাসকিউলার অ্যাট্রফি (এসএমএ)-এর মতো বিরল রোগে, যেখানে ৯০ শতাংশ আক্রান্তের গড় আয়ু মেরেকেটে দেড় বছর!
  • বিশ্বের সবচেয়ে দামি ওষুধ জোলজেন্সমা সারিয়ে তুলতে পারে আয়াংশকে, কিন্তু তার দাম পড়বে ১৬ কোটি টাকা!

হায়দরাবাদ: অন্য পাঁচটা বাচ্চার চেয়ে একটু আলাদা সে। ছ’মাস বয়স থেকেই বুঝতে পারছিলেন বাবা-মা। সে হামাগুড়ি দিতে পারে না, নিজের ব্যালেন্সে বসতেও পারে না। বয়স বেড়ে যখন আট মাস, ঘাড়ের উপর মাথাটা সোজা করে ধরে রাখাই যেন আয়াংশের জন্য একটা চ্যালেঞ্জ! বাচ্চাকে নিয়ে ডাক্তারের কাছে ছুটলেন বাবা-মা। একের পর এক স্পেশ্যালিস্ট দেখানো, পরীক্ষা-নিরীক্ষা, চলল সবকিছু! জানা গেল, ছোট্ট আয়াংশ ভুগছে স্পাইনাল মাসকিউলার অ্যাট্রফি (এসএমএ)-এর মতো বিরল রোগে, যেখানে ৯০ শতাংশ আক্রান্তের গড় আয়ু মেরেকেটে দেড় বছর!

সন্তানের এই পরিণতি মানতে পারেননি বাবা-মা। শুরু হলো মহৌষধির খোঁজ। জানা গেল, বিশ্বের সবচেয়ে দামি ওষুধ জোলজেন্সমা সারিয়ে তুলতে পারে আয়াংশকে, কিন্তু তার দাম পড়বে ১৬ কোটি টাকা!

হায়দরাবাদের বেসরকারি সংস্থায় কর্মরত যোগেশ গুপ্তার পক্ষে এতগুলো টাকা জোগাড় করা দূর কল্পনারও বাইরে। এ দিকে, ছেলের জীবন-মরণের প্রশ্ন! স্ত্রী রুপেলের সঙ্গে মিলে সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্রাউড ফান্ডিংয়ের আর্জি জানালেন যোগেশ, দিনটা ছিল ৪ ফেব্রুয়ারি। ২৭ মে-র মধ্যে ছেলের ওষুধের টাকা জোগাড় করতে হবে। বাবা-মায়ের মরিয়া বার্তায় সাড়া দিল দেশ। ৬৫,০০০ মানুষের সহযোগিতায় ২৩ মে-র মধ্যেই জোগাড় হয়ে গেল ১৬ কোটি টাকা! আমেরিকা থেকে এলো বহুমূল্য ওষুধ। আর সেই ইঞ্জেকশন নিয়ে বুধবার হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফিরল ছোট্ট আয়াংশ। ঠিক যেন একটা রূপকথা!

তামিলভূমে তাজ্জব বিয়ে! পাত্র সোশ্যালিজম, পাত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়!!
সিঙ্গেল ডোজ ইন্ট্রাভেনাস জোলজেন্সমা ইঞ্জেকশনটি জিন থেরাপির জন্য ব্যবহৃত হয়। আয়াংশের জন্য ৮ জুন আমেরিকার নোভারতিস থেকে হায়দরাবাদে এসে পৌঁছয় ওষুধটি। বুধবার সকালে সেকেন্দ্রাবাদের রেনবো চিল্ড্রেন্স হাসপাতালে আটটি ভায়ালের প্রায় ৬০ মিলিলিটার ওষুধ দেওয়া হয় আয়াংশকে। জ্বর ছাড়া আপাতত আর কোনও সমস্যা নেই তার। আর তাতেই আশার আলো দেখছেন চিকিৎসকরাও। তবে, করোনা কালে সংক্রমণ থেকে আয়াংশকে বাঁচিয়ে রাখতে বাবা-মাকে আরও সতর্ক থাকার পরামর্শ দিয়েছেন চিকিৎসকরা।
একসঙ্গে করোনা, হার্ট অ্যাটাক! সুস্থ হয়ে ফিরলেন ৯২-এর মহিলা
যোগেশ-রুপেলের কাছে পুরো ব্যাপারটা এখনও কেমন স্বপ্নের মতো! এত ভালো মানুষ আছেন দেশে? ভাবতেই চোখ জলে ভরে আসছে যোগেশের। তাঁদের ক্রাউড ফান্ডিংয়ের বার্তা পেয়ে শুধু সাধারণ নাগরিক নন, সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছিলেন বিরাট কোহলি, অনুষ্কা শর্মা, ইমরান হাশমি, দিয়া মির্জা, জাভেদ জাফরি, রাজকুমার রাও, অর্জুন কাপুর, সারা আলি খানেরাও। আর সাহায্য করেছে সরকারও। আমদানি শুল্ক এবং জিএসটি বাবদ ওষুধের উপর থেকে প্রায় ৬ কোটি টাকা মকুব করেছে সরকার!






Source link