Narendra Modi: বাড়ছে করোনা, মোদীকে চিঠিতে পরামর্শ মনমোহনের – covid 19 former pm manmohan singh letter pm narendra modi

Share Now





হাইলাইটস

  • সংক্রমণের ঢেউয়ে দেশে রোজই নতুন নতুন রেকর্ড তৈরি হচ্ছে
  • করোনা ঠেকাতে টিকাকরণে জোর দেওয়ার আর্জি জানিয়ে মোদীকে চিঠি লিখেছেন মনমোহন
  • করোনা মোকাবিলায় মোদীকে চিঠিতে পাঁচটি পরামর্শ দিয়েছেন কংগ্রেসের বর্ষীয়ান নেতা

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে দেশে ভয়াবহ পরিস্থিতি। সংক্রমণের ঢেউয়ে দেশে রোজই নতুন নতুন রেকর্ড তৈরি হচ্ছে। এই পরিস্থিতিতে উদ্বেগ প্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে (PM Narendra Modi) চিঠি লিখলেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং (Manmohan Singh)। করোনা ঠেকাতে টিকাকরণে জোর দেওয়ার আর্জি জানিয়ে মোদীকে চিঠি লিখেছেন মনমোহন। করোনা মোকাবিলায় মোদীকে চিঠিতে পাঁচটি পরামর্শ দিয়েছেন কংগ্রেসের বর্ষীয়ান নেতা।

চিঠিতে মনমোহন সিং লিখেছেন, একটা নির্দিষ্ট সংখ্যক মানুষকে টিকা দিতে হলে পর্যাপ্ত অর্ডার দিতে হবে। আগামী ছয়মাসের জন্য কী পরিমাণ ভ্যাকসিনের অর্ডার দেওয়া হয়েছে, তা প্রকাশ করা উচিত। জরুরি ভিত্তিতে টিকাকরণের জন্য কেন্দ্রীয় সরকার ১০ শতাংশ লক্ষ্যমাত্রা ধার্য করতে পারে বলেও চিঠিতে উল্লেখ করেছেন মনমোহন। চিঠিতে তিনি উল্লেখ করেছেন, ৪৫ বছরের কম বয়স হলেও সামনের সারিতে থাকা কর্মীদের টিকাকরণ নিয়ে আরও নমনীয় হতে হবে। যার মধ্যে বাস-ট্যাক্সিচালক, পঞ্চায়েত কর্মী, পুরকর্মীরা রয়েছেন। ৪৫ বছরের নীচে হলেও তাঁদের টিকা দেওয়া যেতে পারে।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি কংগ্রেসের ওয়ার্কিং কমিটির বৈঠকে করোনা পরিস্থিতি নিয়ে কেন্দ্রকে নিশানা করেন সোনিয়া গান্ধী। তাঁর কথায়, তিনি প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি লিখেছিলেন, কংগ্রেসের মুখ্যমন্ত্রীরা প্রধানমন্ত্রী ও কেন্দ্রীয় মন্ত্রীদের সঙ্গে টিকা, অক্সিজেনের অভাব নিয়ে কথা বলেছেন। কিন্তু, তারপরও প্রধানমন্ত্রী নীরব। মোদী সরকারের অপদার্থতার জন্যই দেশে করোনায় এই পরিস্থিতি বলে বিঁধেছেন প্রাক্তন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী পি চিদাম্বরম।

নেই ওষুধ, প্রয়োজন ভ্যাকসিন, প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি মুখ্যমন্ত্রীর

এদিকে, প্রধানমন্ত্রীকে চিঠি লিখলেন বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় (CM Letter to PM)। চিঠিতে তিনি তিনটি বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করতে চেয়েছেন। তিনি জানিয়েছেন, রাজ্যে এই মুহূর্তে ৫.৪ কোটি ভ্যাকসিন প্রয়োজন রয়েছে। এছাড়াও করোনায় জীবনদায়ী ওষুধ টসিলিজুমাব ও রেমডেসিভিরের অপ্রতুলতা রয়েছে। অন্তত ছয় হাজার রেমডেসিভিরের ভায়াল ও এক হাজার টসিলিজুমাবের ভায়াল কেন্দ্রের কাছে চেয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

টাটকা ভিডিয়ো খবর পেতে সাবস্ক্রাইব করুন এই সময় ডিজিটালের YouTube পেজে। সাবস্ক্রাইব করতে এখানে ক্লিক করুন।






Source link