Mamata Banerjee: ‘মমতার আচরণ দুর্ভাগ্যজনক’, প্রধানমন্ত্রীকে অপেক্ষা করানোর অভিযোগ তুলে ময়দানে BJP-র হুজ হুরা – bjp leaders attack mamata banerjee for not attending the meeting with pm modi

Share Now





হাইলাইটস

  • ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের ক্ষয়ক্ষতির খতিয়ান নিয়ে শুক্রবার বৈঠকে বসার কথা ছিল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের।
  • কিন্তু এদিন বৈঠকে যোগ দেননি মমতা।
  • ইতিমধ্যেই এই নিয়ে শুরু হয়েছে তোলপাড়।

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের ক্ষয়ক্ষতির খতিয়ান নিয়ে শুক্রবার বৈঠকে বসার কথা ছিল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এবং মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের। কিন্তু এদিন বৈঠকে যোগ দেননি মমতা। সূত্রের খবর, রাজ্যে ইয়াসে মোট ক্ষয়ক্ষতির খতিয়ান প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দিয়েই কলাইকুণ্ডায় বৈঠকস্থল ছাড়েন মুখ্যমন্ত্রী। অভিযোগ, এদিন বৈঠকস্থলে ৩০ মিনিট দেরিতে পৌঁছান মুখ্যমন্ত্রী। ইতিমধ্যেই এই নিয়ে শুরু হয়েছে তোলপাড়। বৈঠকে উপস্থিত না থাকার জন্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সমালোচনায় সরব হয়েছেন অমিত শাহ, জে পি নাড্ডা থেকে শুরু করে BJP-র শীর্ষ নেতৃত্ব।

এদিন দুপুর আড়াইটা থেকে সাড়ে তিনটে পর্যন্ত পশ্চিম মেদিনীপুরের কলাইকুণ্ডাতে মোদী-মমতার বৈঠক হওয়ার কথা ছিল। অভিযোগ ৩০ মিনিট দেরিতে মাত্র ১৫ মিনিটের জন্য প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করেন মুখ্যমন্ত্রী।

বিরোধী দলনেতা শুভেন্দুই, প্রমাণ নিয়ে ময়দানে BJP
বৈঠকে উপস্থিত না থাকা নিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যাসের বিরুদ্ধে সরব প্রথম সারির BJP নেতারা। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ এদিন টুইটে লেখেন, ‘মমতা দিদি আজ যা করেছেন তা অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক। ইয়াসে বহু মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন এবং এই সময় সাধারণ মানুষের সাহায্যের প্রয়োজন রয়েছে। কিন্তু জনস্বার্থের জন্যও ঔদ্ধত্য ছাড়তে পারেননি দিদি।’

এদিকে টুইটে JP Nadda টুইটে লেখেন, ‘যখন আমাদের প্রধানমন্ত্রী ঘূর্ণিঝড় ইয়াস’র ক্ষতিগ্রস্ত বাংলার মানুষের পাশে দৃঢ়তার সঙ্গে দাঁড়িয়ে আছেন, তখন মমতা জীর উচিত ছিল জনগণের কল্যাণার্থে নিজের অহং-কে বিসর্জন দেওয়া। পিএম এর বৈঠকে তাঁর অনুপস্থিতি হল সাংবিধানিক নীতি আর সমবায় মৈত্রীতন্ত্রের হত্যা।’

অন্যদিকে বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী জানান, যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামোতে আজকে একটি কালো দিন। মুখ্যমন্ত্রী আবার প্রমাণ করে দিলেন মানুষের ভোগান্তির বিষয়ে তিনি চিন্তিত নয়।’ BJP নেতা স্বপন দাশগুপ্ত টুইটে লেখেন, ‘ইয়াস নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে মুখ্যমন্ত্রীর বৈঠকে না বসার সিদ্ধান্ত অত্যন্ত নিন্দনীয়। উনি রাজ্য এবং কেন্দ্রের মধ্যে একটি সংঘাত তৈরি করার চেষ্টা করছেন।’






Source link