CYCLONE: ধেয়ে আসছে বছরের প্রথম ঘূর্ণিঝড়, কোথায় আছড়ে পড়বে? – cyclone likely to form over arabian sea and it may hit west coast this weekend

Share Now





হাইলাইটস

  • চলতি সপ্তাহেই একুশের প্রথম ঘূর্ণিঝড় আরব সাগরে আছড়ে পড়বে বলে পূর্বাভাস
  • মৌসম ভবনের তরফে জানানো হয়েছে, আরব সাগরে একটি নিম্নচাপের সৃষ্টি হয়েছে
  • ১৬ মে-র মধ্যে নিম্নচাপটি ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়ে লাক্ষাদ্বীপ উপকূলে আছড়ে পড়বে

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক : নির্ধারিত সময়েই দেশে বর্ষা (Monsoon) ঢুকবে বলে আগেই জানিয়েছে মৌসম ভবন। তবে পুরোদমে বর্ষা ঢোকার আগেই ঘূর্ণিঝড় (Cyclone) আসতে চলেছে। চলতি সপ্তাহেই একুশের প্রথম ঘূর্ণিঝড় আছড়ে পড়বে বলে পূর্বাভাস জারি করল মৌসম ভবন।

মৌসম ভবনের তরফে জানানো হয়েছে, আরব সাগরে একটি নিম্নচাপের সৃষ্টি হয়েছে। ১৪ মে সকালের মধ্যেই আরব সাগরের দক্ষিণ-পূর্ব উপকূলে নিম্নচাপটি ঘনীভূত হয়ে গভীর নিম্নচাপে পরিণত হবে। তারপর এটি ধীরে ধীরে উত্তর ও উত্তর-পশ্চিমে লাক্ষাদ্বীপের দিকে এগিয়ে যাবে। ১৬ মে-র মধ্যে নিম্নচাপটি ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হয়ে লাক্ষাদ্বীপ উপকূলে আছড়ে পড়বে। যার প্রভাবে ১৬ মে পর্যন্ত কেরল, কর্নাটক, তামিলনাড়ু এবং লাক্ষাদ্বীপে হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাত চলবে বলে পূর্বাভাস জারি করেছে মৌসম ভবন।

আবহবিদরা জানাচ্ছেন, আরব সাগরে সৃষ্ট নিম্নচাপটির প্রভাবে বৃহস্পতিবার থেকেই সমুদ্র উত্তাল হবে। বিশেষত ১৪ থেকে ১৬ মে সমুদ্রের জলস্তর বাড়বে এবং জলোচ্ছ্বাস হবে বলেও সতর্কবার্তা জারি করেছে মৌসম ভবন। লাক্ষাদ্বীপ কেরল, কর্নাটক, তামিলনাড়ু উপকূলের পাশাপাশি ১৫ মে গোয়া এবং মহারাষ্ট্র উপকূলেও সমুদ্র উত্তাল হবে বলে পূর্বাভাস আবহবিদদের। লাক্ষাদ্বীপে সমুদ্রের ঢেউ সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে ১ কিলোমিটার পর্যন্ত উপরে উঠতে পারে বলেও সতর্কতা জারি করেছে মৌসম ভবন।

কবে আসছে বর্ষা? জানিয়ে দিল হাওয়া অফিস

তীব্র জলোচ্ছ্বাসের পাশাপাশি বৃহস্পতিবার থেকে লাক্ষাদ্বীপ এবং মালদ্বীপে সমুদ্র তীরবর্তী এলাকায় ঝোড়ো হাওয়া বইবে। হাওয়ার গতিবেগ ঘণ্টায় ৪০-৫০ কিলোমিটার থেকে ৬০ কিলোমিটার পর্যন্ত থাকবে বলেও সতর্কবার্তা জারি করেছে মৌসম ভবন। কেরল, গোয়া, কর্নাটক এবং মহারাষ্ট্রের উপকূলবর্তী এলাকাতেও রবিবার পর্যন্ত ঝোড়ো হাওয়া বইবে বলেও জানিয়েছে আবহাওয়া দফতর। তাই মৎস্যজীবীদের বৃহস্পতিবার থেকে সমুদ্রে যেতে নিষেধ করা হয়েছে। যাঁরা ইতিমধ্যে সমুদ্রে পাড়ি দিয়েছেন, তাঁদের বুধবারের মধ্যে ফিরে আসার আবেদনও জানিয়েছে মৌসম ভবন।






Source link