covovax: ভারত পেতে পারে নতুন টিকা, জানুন কোভিশিল্ডের থেকে কতটা আলাদা এই Vaccine – vaccine covovax could be available in india soon

Share Now





হাইলাইটস

  • এখনও পর্যন্ত কোনও কোভিড টিকাই করোনাভাইরাসের উপর ৯০ শতাংশ কার্যকরী হিসেবে প্রমাণিত হয়নি।
  • কিন্তু আমেরিকার বায়োটেকনলজিক্যাল কোম্পানী চলতি মাসেই ঘোষণা করেছে তাঁদের তৈরি টিকা করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে ৯০ শতাংশ কাজ করে।
  • আপাতত NVX-CoV2373 -এই টিকাটি তৃতীয় পর্যায়ের ট্রায়াল চলছে।

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: এখনও পর্যন্ত কোনও কোভিড টিকাই করোনাভাইরাসের উপর ৯০ শতাংশ কার্যকরী হিসেবে প্রমাণিত হয়নি। কিন্তু আমেরিকার বায়োটেকনলজিক্যাল কোম্পানী নোভাভ্যাক্স চলতি মাসেই ঘোষণা করেছে তাঁদের তৈরি টিকা করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে ৯০ শতাংশ কাজ করে। কোভিশিল্ড এবং কোভ্যাকসিনের থেকে কতটা আলাদা এই টিকা?

আপাতত NVX-CoV2373 -এই টিকাটি তৃতীয় পর্যায়ের ট্রায়াল চলছে। এদিকে বর্তমানে করোনাভাইরাসের নতুন স্ট্রেন আলফা(B.1.1.7) এবং বিটা(B.1.351) সাধারণ মানুষের জন্য অত্যন্ত সংক্রামক হয়ে উঠছে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে এই টিকা অনেকাংশে কার্যকরী হয়ে উঠতে পারবে, মনে করছেন গবেষকরা। পুনের সেরাম ইনস্টিটিউট ভারতে এই টিকা তৈরি করবে। সেপ্টেম্বর মাসেই কোভাভ্যাক্স নামে এই টিকা বাজারে আসতে চলেছে।

এবার বাড়িতে বসেই নেওয়া যাবে করোনা টিকা
কীভাবে আলদা এই টিকা? কোভাভ্যাক্স তৈরির ক্ষেত্রে ‘স্পাইক প্রোটিন ফর্মুলা’ ব্যবহার করা হয়েছে। ভাইরাসের জেনেটিক কোডকে কাজে লাগিয়ে এই ভ্যাকসিনটি ডিজাইন করা হয়েছে। টিকার ফলে দেহ যে ‘ প্রোটিন’ তৈরি করে তা করোনাভাইরাসকে রুখতে সাহায্য করে। এক্ষেত্রে টিকার সঙ্গে থাকছে ম্যাট্রিক্স এম। ম্যাট্রিক্স এম দেহে বি সেল তৈরি করে যা এক ধরনের শ্বেত কনিকা। যার ফলে দেহে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ে। অন্যদিকে শিম্পাঞ্জির শরীরে পাওয়া অ্যাডিনোভাইরাস ব্যবহার করা হয়েছে কোভিশিল্ড টিকায়। যা মানব দেহে করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে অ্যান্টিবডি তৈরি করতে সক্ষম।

সুখবর! নতুন করে আরও ৫০ হাজার ডোজ টিকা এল রাজ্যে
নতুন টিকা হাতে এলে করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াই করা অনেকাংশে সহজ হয়ে যাবে বলে মনে করা হচ্ছে। প্রসঙ্গত, করোনায় বড় স্বস্তি দেশে। ৭৪ দিনে সর্বনিম্ন কোভিড গ্রাফ। দৈনিক সংক্রমণ পৌঁছল ৬০ হাজারের গণ্ডিতে। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রকের বুলেটিন জানান দিচ্ছে, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৬০ হাজার ৭৫৩। গত একদিনের তুলনায় সামান্য বেড়ে মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৬৪৭। এদিকে, আশা জাগাচ্ছে প্রতিদিন বেড়ে চলা কোভিড মুক্ত রোগীর সংখ্যা। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাকে হারিয়ে জয়ী হয়েছেন ৯৭ হাজার ৭৪৩ জন।কেন্দ্র সরকারের সর্বশেষ তথ্য জানান দিচ্ছে, দেশে উল্লেখযোগ্যভাবে কমেছে অ্যাক্টিভ রোগীর সংখ্যা। এই মুহূর্তে দেশে করোনা আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছেন ৭ লাখ ৬০ হাজার ১৯ জন। দেশে সুস্থতার হার ৯৬.১৬ শতাংশ। গোটা দেশে মোট টিকা নিয়েছেন ২৭ কোটি ২৩ লাখ ৮৮ হাজার ৭৮৩ জন।






Source link