Coronavirus West Bengal: পরিস্থিতি উদ্বেগজনক! রাজ্যের দৈনিক সংক্রমণ সাড়ে ১৭ হাজার পার – West Bengal Covid Update: 17515 New Covid Cases In Bengal | Eisamay

Share Now





হাইলাইটস

  • বাংলার করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ।
  • এবার দৈনিক সংক্রমণ সাড়ে ১৭ হাজার ছাড়াল।
  • কমছে সুস্থতার হারও।

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: বাংলার করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ। এবার দৈনিক সংক্রমণ সাড়ে ১৭ হাজার ছাড়াল। কমছে সুস্থতার হারও। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে একগুচ্ছ পদক্ষেপ নিয়েছে রাজ্য সরকার।

গত ২৪ ঘণ্টায় বাংলায় নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৭ হাজার ৫১৫ জন, মৃত্যু হয়েছে ৯২ জনের। একদিনে করোনাকে হারিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ১৫ হাজার ৫৮৭ জন। এখনও পর্যন্ত রাজ্যে মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৮ লাখ ৬৩ হাজার ৩৯৩ জন এবং এই মুহূর্তে রাজ্যে সক্রিয় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ১ লাখ ১৮ হাজার ৪৯৫। বিগত ২৪ ঘণ্টায় শুধুমাত্র কলকাতাতে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩ হাজার ৯৩৫ জন, মৃত্যু হয়েছে ২৩ জনের।

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে কিছুতেই অভিনন্দন জানাব না: বাবুল
প্রসঙ্গত, করোনা সংক্রমণ রোধ করতে ইতিমধ্যেই একগুচ্ছ বিধিনিষেধ জারি করেছে নবান্ন। শুক্রবার রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতরের তরফে একটি নির্দেশিকা জারি করা হয়। এই নির্দেশিকা অনুযায়ী, এদিন থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য রাজ্যের সমস্ত শপিং মল, শপিং কমপ্লেক্স, বিউটি পার্লার, সিনেমা হল, রেস্তোরাঁ, বার, স্পোর্টস কমপ্লেক্স, জিম,স্পা, সুইমিং পুল বন্ধ থাকবে।

রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে সোমবার নবান্নে একটি উচ্চ পর্যায়ের বৈঠক করেছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। বাংলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ঊর্ধ্বমুখী। যা রাজ্য সরকারকে উদ্বেগে রেখেছে। কলকাতায় তিন হাজারের বেশি মানুষ আক্রান্ত হচ্ছেন। এই পরিস্থিতি আঁচ করে হাসপাতালের বেড বাড়ানোর পাশাপাশি সম্প্রতি সেফ হোমের পরিকাঠামো বাড়াতে আরও তৎপর হয় রাজ্য প্রশাসন। রাজ্যের করোনা পরিস্থিতি নিয়ে বড় কোনও সিদ্ধান্ত নিতে পারেন তিনি, এমনই মনে করছিল অভিজ্ঞ মহল। কিন্তু নির্দেশিকায় অন্যান্য সামাজিক অনুষ্ঠানের পাশাপাশি বিয়ে বাড়ি বন্ধ রাখার নির্দেশিকায় মাথায় হাত পড়েছিল অনেক বহু পাত্র-পাত্রী এবং তাঁদের পরিবারের মাথায়। তবে পরে নতুন নির্দেশিকায় বলা হয়েছে, বিয়েবাড়ির ক্ষেত্রে সর্বাধিক ৫০ জনকে আমন্ত্রণ জানানো যাবে। শুধু বিয়েবাড়ি নয়, অন্যান্য পারিবারিক অনুষ্ঠানের ক্ষেত্রেও একই নিয়ম প্রযোজ্য থাকবে। বিয়েবাড়়িতে করোনা সংক্রান্ত বিধি মেনে চলা যেমন মাস্ক পরা, স্যানিটাইজারের ব্যাবহার এবং সামাজিক দূরত্ববিধি মেনে চলা বাধ্যতামূলক।

মমতাকে অভিনন্দন রাজ্যপালের, কাল রাজভবনে বৈঠক
অন্যদিকে নবান্ন জানিয়েছিল, শর্তসাপেক্ষে খোলা থাকবে বাজার। সকাল ৭টা থেকে ১০টা এবং বিকেল ৩টে থেকে ৫টা পর্যন্ত খোলা যাবে দোকান। শনিবার বিজ্ঞপ্তি জারি করে রাজ্য সরকারের তরফে জানানো হয়, ষুধের দোকান, ওষুধের সরঞ্জাম কেনার দোকান, মুদি দোকান, মাংসের দোকান, যানবাহন চলাচল, বিদ্যুৎ, টেলিকম ইত্যাদি এই নিষেধাজ্ঞার আওতায় পড়ে না। প্রত্যেক ক্ষেত্রেই সামাজিক দূরত্ববিধি মেনে চলা বাধ্যতামূলক।

টাটকা ভিডিয়ো খবর পেতে সাবস্ক্রাইব করুন এই সময় ডিজিটালের YouTube পেজে। সাবস্ক্রাইব করতে এখানে ক্লিক করুন।






Source link