ayushmann khurrana: ৯-এ পা ‘ভিকি ডোনার’-এর, ‘নার্ভাস ছিলাম’, জানালেন আয়ুষ্মান – ayushmann khurrana says he was very nervous on the day when his debut film vicky donor completes nine years

Share Now





হাইলাইটস

  • ‘ডোনার ভিকি’-কে কীভাবে নেবে দর্শক!
  • এই ভেবে নার্ভাস হয়েছিলেন আজকের সুপারস্টার আয়ুষ্মান খুরানা।
  • আজ নয় বছরে পা রাখল ‘ভিকি ডোনার’। সেদিন বলিউডে পা রাখার ‘ভিকির’ পায়ের তলায় মাটি অনেক শক্ত হয়েছে।

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: ‘মাচো’ ব্যাপারটা ‘মিসিং’ ছিল। সিক্সপ্যাকও ছিল না। ছিপছিপে চেহারার ‘ডোনার ভিকি’-কে কীভাবে নেবে দর্শক! এই ভেবে নার্ভাস হয়েছিলেন আজকের সুপারস্টার আয়ুষ্মান খুরানা। আজ নয় বছরে পা রাখল ‘ভিকি ডোনার’। সেদিন বলিউডে পা রাখার ‘ভিকির’ পায়ের তলায় মাটি অনেক শক্ত হয়েছে। তিনি আজ হার্টথ্রব। কিন্তু নয় বছর আগে আজকের দিনটাই ভয়- আশার দোলাচলে কেটেছিল ‘ভিকি’-র।

আয়ুষ্মান জানান, ‘নয় বছর কেটে গেলেও মনে হচ্ছে কালকেই ভিকি ডোনারের শ্য়ুটিং শেষ হল। সেদিন আমি স্ক্রিপট নিয়ে বিশ্বাসী ছিলাম। কিন্তু মুখ্য চরিত্রে আমাকে কীভাবে নেবে দর্শক, তা নিয়ে নার্ভাস ছিলাম।’

মুখে হাসি, মনে জেদ নিয়েই ‘আউটসাইডার বন গেয়া সুপারস্টার’!
এই বলি তারকা আরও বলেন,’ আমার আজও মনে পরে সেদিন ফোনে আমার পরিবার বন্ধুরা আমাকে কী কথা বলেছিল। সকলে জানিয়েছিল, আমি এত পরিশ্রম করেছি, দর্শক নিশ্চই আমাকে গ্রহণ করবে। আমি আউটসাইডার ছিলাম। সবে নিজের ভাগ্য নিজে লিখতে শুরু করেছি। জীবন আমার জন্য এত কিছু সাজিয়ে রেখেছে এটা ভেবে আমি অভিভূত। ভিকি ডোনার আমাকে অনেক কিছু দিয়েছে।’

করোনা আক্রান্ত শুভশ্রী, কেমন আছে ছোট্ট ইউভান?
আয়ুষ্মানের তরুণ কাঁধেই ছবি চালানোর ভার দিয়েছিলেন সুজিত। এই প্রসঙ্গে অভিনেতা জানান, ‘এই ছবিটি সিনেমার ভাষা বদলে দিয়েছিল। ভিকি ডোনারের সঙ্গে যুক্ত থাকতে পেরেছি, এটা ভেবে গর্ব অনুভব হয়। সুজিত সরকার, জুহি চতুর্বেদী, রনি লাহিড়ীর কাছে আমি কৃতজ্ঞ।’ এই ছবিই যে তাঁকে স্বপ্ন দেখতে শিখিয়েছিল, তা অকপটে স্বীকার করেন আয়ুষ্মান। তিনি জানান, ‘ভিকি ডোনারের সাফল্যই আমাকে অন্য ঘরানার ছবি বেছে নিতে সাহস দিয়েছে। ভিন্ন ধাঁচের ছবির মধ্য দিয়ে ‘খুরানা টাচ’ বাঁচিয়ে রাখবেন সারাজীবন, জানালেন আয়ুষ্মান।

টাটকা ভিডিয়ো খবর পেতে সাবস্ক্রাইব করুন এই সময় ডিজিটালের YouTube পেজে। সাবস্ক্রাইব করতে এখানে ক্লিক করুন।






Source link