assam chief minister: সর্বানন্দ না হিমন্ত, অসমে মুখ্যমন্ত্রী বাছতে হিমশিম BJP – bjp confused in choosing cm between sarbananda sonowal and himanta biswa sarma

Share Now





হাইলাইটস

  • মেরুকরণের তীব্র হাওয়ায় দ্বিতীয়বারের জন্য অসমের শাসনভার BJP-র হাতে ন্যস্ত করেছে জনতা।
  • রাজ্য BJP সভাপতি রঞ্জিৎ দাস জানিয়েছেন, বুধ অথবা বৃহস্পতিবার গুয়াহাটি পৌঁছবেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর।
  • উত্তর-পূর্বের গুরুত্বপূর্ণ রাজ্যে ভোটের লড়াইতে এবার মুখ্যমন্ত্রীর নাম নিয়ে উচ্চবাচ্য করেনি BJP।

এই সময় ডিজিটাল ডেস্ক: মুখ থুবড়ে পড়েছে মহাজোট। মেরুকরণের তীব্র হাওয়ায় দ্বিতীয়বারের জন্য অসমের শাসনভার BJP-র হাতে ন্যস্ত করেছে জনতা। তারপর কেটে গিয়েছে ৪৮ ঘণ্টা। এখনও জারি ঢাকঢাক গুড়গুড়। কে হবেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী? অসমজুড়ে এটাই এখন লাখ টাকার প্রশ্ন। করোনার উদ্বেগজনক পরিস্থিতি সরিয়ে উত্তর-পূর্বের নিউক্লিয়াস এখন মেতে দু’টি নাম নিয়ে। প্রথমজন রাজ্যের বিদায়ী মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সোনোয়াল এবং দ্বিতীয় উত্তর-পূর্বে গেরুয়া শিবিরের ট্রাম্প কার্ড হিমন্ত বিশ্ব শর্মা।
গণনার আগে ‘ভুতুড়ে’ EVM ঘিরে জোর হইচই অসমে!
এবারের নির্বাচনে মহাজোটকে পর্যুদস্ত করে দ্বিতীয়বারের জন্য অসমে জয় পেয়েছে NDA জোট। ৭৫টি আসন গিয়েছে গেরুয়া শিবিরের ঝুলিতে। কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন মহাজোট থেমেছে ৫০-এ। বাকি একটি আসনে জয় পেয়েছেন জেলবন্দি নেতা অখিল গগৈ। রাজ্য BJP জয় নিয়ে যতটাই উচ্ছ্বসিত, ভাবী মুখ্যমন্ত্রীর নাম নিয়ে যেন ততটাই উন্নাসিক। মুখ্যমন্ত্রী নিয়ে কোনও প্রশ্ন শুনলেই উলটো দিকে হাঁটা দিচ্ছেন। মঙ্গলবার এবিষয়ে প্রশ্ন করা হলে মুচকি হেসে মুখ্যমন্ত্রী পদের অন্যতম দাবিদার হিমন্তবিশ্ব শর্মা বলেন, ‘দলের সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা আজ কলকাতায় রয়েছেন। ফলে অসম নিয়ে দিল্লিতে এদিন কোনও বৈঠকের সম্ভাবনা নেই। মনে হয়, আগামীকাল বা পরশু এবিষয়ে শীর্ষ নেতৃত্ব বৈঠকে বসবে।’ রাজ্যুজুড়ে তীব্র জল্পনার মাঝে তাঁর আরও বক্তব্য, ‘কেন্দ্রীয় নেতৃত্বই সিদ্ধান্ত নেবে। তাই আমাদের অপেক্ষা করাই সমীচিন।’

রাজ্য BJP সভাপতি রঞ্জিৎ দাস জানিয়েছেন, বুধ অথবা বৃহস্পতিবার গুয়াহাটি পৌঁছবেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী নরেন্দ্র সিং তোমর। সেখানেই দলের প্রদেশ নেতৃত্ব ও বিধায়কদের সঙ্গে কথা বলবেন তিনি। তারপরই জানানো হবে সিদ্ধান্ত।
নাগরিকত্ব তাসেই গেরুয়া অসম
উত্তর-পূর্বের গুরুত্বপূর্ণ রাজ্যে ভোটের লড়াইতে এবার মুখ্যমন্ত্রীর নাম নিয়ে উচ্চবাচ্য করেনি BJP। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ দফায় দফায় প্রচারে এলেও এবিষয়ে ছিলেন স্পিকটি নট। ভোটে জয় পাওয়ার পর তাই জল্পনা এখন তুঙ্গে। মিষ্টভাষী, বিনয়ী বলে খ্যাত রাজ্যের বিদায়ী মুখ্যমন্ত্রী সর্বানন্দ সোনোয়ালের স্বচ্ছ ভাবমূর্তি BJP-কে অসম বিধানসভা নির্বাচনে অনেকটাই অক্সিজেন জুগিয়েছে। অন্যদিকে, দক্ষ সংগঠক হিমন্ত বিশ্ব শর্মার উপর অনেকংশেই নির্ভরশীল কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব। শোনা যায়, উত্তর পূর্ব নিয়ে কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে স্বয়ং কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহও হিমন্তর পরামর্শ নিয়ে থাকেন। রাজ্যের স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসেবে করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলা করে প্রশংসিত হয়েছিলেন হিমন্ত। সূত্রের খবর, হাওয়া হিমন্তের অনুকূলে থাকলেও মুখ্যমন্ত্রী বদলের জন্য পোক্ত কারণ খুঁজছে BJP। সোনোয়ালের স্বচ্ছ ভাবমূর্তি ও মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে সাফল্যই হিমন্ত ও মুখ্যমন্ত্রীর চেয়ারের মাঝে দেওয়াল হয়ে দাঁড়িয়ে।

টাটকা ভিডিয়ো খবর পেতে সাবস্ক্রাইব করুন এই সময় ডিজিটালের YouTube পেজে। সাবস্ক্রাইব করতে এখানে ক্লিক করুন।






Source link