রাফাল চুক্তির পর ভারতীয় মধ্যস্থতাকারীকে ৯ কোটি টাকা ‘উপহার’ দাসোর, কিন্তু কেন? I Dassault Paid 1 Million Euros To Indian Middleman In Rafale Deal: Report

Share Now





নিজস্ব প্রতিবেদন: রাফাল চুক্তি নিয়ে আবারও বিতর্ক। চুক্তির সময় ১০ লক্ষ ইউরো দেওয়া হয়েছে ভারতীয় মধ্যস্থতাকারীকে। ১০ লক্ষ ইউরো অর্থাৎ ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় ৯ কোটি টাকা। কিন্তু কেন এই টাকা দেওয়া হয়েছিল তাই নিয়ে উঠছে প্রশ্ন।  কোন খাতে সেই টাকা ব্যয় হয়েছে সেদিকেও নজর দেওয়া হচ্ছে। প্রসঙ্গত, আগেই মোদী সরকারের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ এনেছিল বিরোধীরা। 

রাফাল চুক্তিতে এই মোটা অঙ্কের টাকার কথা প্রকাশ্যে এনেছে ফ্রান্সের এক অনলাইন সংবাদমাধ্যম। যেখানে উল্লেখ রয়েছে, এই  মোটা অঙ্কের টাকার কোনও যথার্থ উত্তর দিতে পারেনি যুদ্ধবিমান প্রস্তুতকারী ফরাসি সংস্থা দাসো।

প্রতিবেদনে উল্লেখ আছে, ২০১৮ সালে এই টাকার কথা জেনে ছিল ফ্রান্সের দুর্নীতি দমন কর্তৃপক্ষ। তখন দাসো জানিয়েছিল, রাফালের ৫০ টি নমুনা তৈরির জন্য ভারতীয় সাব কন্ট্রাক্টরকে টাকা দেওয়া হয়। 

কিন্তু প্রশ্ন ওঠে, ফরাসি যুদ্ধ বিমান তৈরিতে ভারতীয় সংস্থাকে কেন টাকা দেওয়া হল! এই প্রশ্নের কোনও উত্তর মেলেনি। কেন্দ্রে নরেন্দ্র মোদী সরকার আসার চার বছরের মাথায় ফ্রান্সের সংস্থা দাসো-র সঙ্গে ৩৬টি যুদ্ধবিমানের চুক্তি হয় ভারতের। যে বিমানের যন্ত্রাংশ তৈরির দায়িত্ব পায় অনিল আম্বানী। যা নিয়ে বিতর্কের ঝড় তোলে বিরোধীপক্ষরা। 

পরবর্তীকালে ফরাসি দুর্নীতি দমন শাখাকে দাসো জানায় ভারতীয় সংস্থাকে ওই টাকা বিশেষ উপহার হিসেবে দেওয়া হয়। জানা গিয়েছে এই ভারতীয় সংস্থা  ডেফসিস সলিউশন। যার প্রধান সুসেন গুপ্তা। এই টাকা কেন দেওয়া হয়েছিল, কী কারণে, সেই টাকা নিয়ে কোনও তছরূপ হয়েছে কিনা সে বিষয়ে এখনও কোনও সঠিক তথ্য মেলেনি। ২০২২ সালের মধ্যে যুদ্ধবিমান ভারতে পাঠানোর প্রতিশ্রুতি দিয়েছে দাসো। 







Source link