ভ্রান্ত ধারণা দূর করুন,Corona সিগারেটের ধোঁয়ার মতো ছড়ায়, ঠিক কী বলছেন বিশেষজ্ঞরা

Share Now





নিজস্ব প্রতিবেদন: ভ্রান্ত ধারণা দূর করুন। বাতাসে করোনা ভাইরাস ঘুরে বেড়াচ্ছে, এই তথ্য সম্পূর্ণ সঠিক নয়। জেনে নিন কী বলছেন বিশেষজ্ঞরা। করোনা বায়ুবাহিত। শুরুর দিন থেকেই এই তথ্য দিয়ে আসছেন বিশেষজ্ঞরা। তার সঙ্গে, সহমত হয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। কিন্তু তার মানে এই নয়, যে বাতাসে দূষণের মতো ভরে গিয়েছে করোনা ভাইরাস! আপনি নিঃশ্বাস নিলেই করোনা আপনাকে আক্রমণ করছে।

The united states center of disease control (CDC) শুক্রবার একটি অ্যাডভাইজারি জারি করেছে, যেখানে করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পড়া নিয়ে বিস্তর তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে।  সিডিসির পরামর্শ অনুসারে, ভাইরাস বায়ুবাহিত হয়ে নিকটে থাকা ব্যক্তিকে আক্রমণ করে। সংক্রামিত ব্যক্তির থেকে তিন-ছয় ফিটের মধ্যেই থাকে বেশি ঝুঁকি। শ্বাস নেওয়া, কথা বলা, গান করা,শরীর চর্চা করা, কাশি ও হাঁচির সময় ছড়িয়ে পড়ে করোনা। যা শ্বাস প্রশ্বাসের মাধ্যমে ঢুকে পড়ে অন্যের শরীরে। এর জন্য়ই মাস্ক পরার কথা বারবার করে বলা হচ্ছে। 

যেখানে বাতাস কম চলাচল করে সেখানে এই সম্ভাবনা বেশি থাকে।  সিডিসির তথ্যে উল্লেখ করা হয়েছে যে বড় ফোঁটাগুলি কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে ছড়িয়ে পড়ার পর তা শুকিয়ে যায় এবং ছোট ফোঁটা ও কণায় তৈরি হয়। যা কমপক্ষে ৩০ মিনিট থেকে ১ ঘন্টা স্থগিত থাকতে পারে বাতাসে।

বিশেষজ্ঞরা জানাচ্ছেন, এয়ারবর্ন মানে এই নয় যে এটি বাতাসে রয়েছে এবং আপনি যেখানেই থাকুন আপনি কোভিড আক্রান্ত হবেন। 

যদি  একজন ব্যক্তি ধূমপান করেন, তার ধোঁয়া যেমনভাবে ছড়িয়ে পড়ে।  ঠিক তেমনভাবেই করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে।  যদি কেউ কোনও বড় ঘরের কোণায় ধূমপান করেন তবে আপনি ঘরের অন্য কোণায় দাঁড়িয়ে থেকেও সিগারেটের ধোঁয়ার গন্ধ পেতে পারেন। ভাইরাস ঠিক তেমনই আচরণ করে। কিন্তু সব জায়গায় ছড়িয়ে পড়ছে এমনটা নয়। আবার বদ্ধ ঘরে কেউ সিগারেট খেয়েছে কিছুক্ষণ আগে যেমন বোঝা যায়। ঠিক তেমনই ভাইরাস বদ্ধ ঘরে ঘুরে বেড়ায়। ঠিক এই কারণে ঘরে হাওয়া চলাচলের প্রয়োজন রয়েছে ঘরে।  







Source link